img

Follow us on

Tuesday, Jul 16, 2024

Euro 2024: ক্রিকেটের প্রযুক্তি এবার ফুটবল মাঠেও! ইউরোতে অন্তর্ভুক্ত স্নিকোমিটার, কীভাবে করল কাজ?

Snickometer: স্নিকোমিটার কী, কেমন করে ব্যবহৃত হল বেলজিয়াম-স্লোভাকিয়া ম্যাচে?

img

হ্যান্ডবল ধরতে ক্রিকেটের প্রযুক্তিতেই ভরসা ফুটবলেও। সোমবার বেলজিয়াম-স্লোভাকিয়া ম্যাচে। ছবি—সংগৃহীত।

  2024-06-18 17:04:34

মাধ্যম নিউজ ডেস্ক: ইউরো কাপে (Euro 2024) প্রথম অঘটনের শিকার বেলজিয়াম। ফিফা র‌্যাঙ্কিংয়ে ৪৮ নম্বরে থাকা স্লোভাকিয়ার কাছে হেরে ইউরোর মিশন শুরু করল রেড ডেভিলরা। এ ম্যাচে দেখা গেল নতুন এক প্রযুক্তির। ভার-এর সঙ্গে সঙ্গেই ব্যবহৃত হল স্নিকোমিটার (Snickometer)। সাধারণত ক্রিকেট মাঠে এর ব্যবহার হয়। মাঠে ম্যাচ চলাকালে ফুটবলার বল হাত দিয়ে ছুঁয়েছেন কি না, ছুঁলেও কতটা বদলেছে বলের গতিপথ, বদলে যাওয়া গতিপথ কাজে লাগিয়ে গোল করতে কতটা সুবিধা পেয়েছেন, এর সবই ধরা পড়ল এই প্রযুক্তিতে।

স্নিকোমিটার-এর ব্যবহার

ম্যাচের ৮৬ মিনিটের মাথায় পরিবর্ত হিসাবে নামা বেলজিয়ামের লুইস ওপেনডা একক দক্ষতায় বল নিয়ে বক্সে ঢোকেন। তিনি বল বাড়ান রোমেলু লুকাকুর দিকে। বক্সে দাঁড়িয়ে থাকা লুকাকু বাঁ পায়ের শটে গোল করেন। কিন্তু সেই গোল বাতিল হয়ে যায়। ভার-এ দেখা যায় ওপেনডা হ্যান্ডবল করেছিলেন। ভার প্রযুক্তির সঙ্গে স্নিকোমিটার ব্যবহার করে মিলল সাফল্য। দেখা গেল, বল নিয়ে যাওয়ার সময় হাতে লাগিয়েছিলেন ওপেনডা। তার ফলে বলের গতিপথ খানিকটা বদলে গিয়েছিল। ফলে বল নিয়ে বক্সে ঢুকতে সুবিধা হয়েছিল ওপেনডার। সেই কারণে এই গোল বাতিল করেন রেফারি উমুট মেলার।

ক্রিকেট মাঠে স্নিকোমিটার

স্নিকোমিটার (Snickometer) সাধারণত ক্রিকেটে ডিআরএস-এর সময় ব্যবহার করেন আম্পায়ারেরা। এই প্রযুক্তিতে বোঝা যায় দু’টি বস্তুর মধ্যে স্পর্শ হয়েছে কি না। অর্থাৎ, এলবিডব্লিউ বা ক্যাচের ক্ষেত্রে বল ব্যাটে লেগেছে না প্যাডে, তা এই প্রযুক্তিতে বোঝা যায়। এবার তা ফুটবলেও ব্যবহার করা হল। এর আগে ভার প্রযুক্তি ব্যবহার করা হলেও স্নিকোমিটার ব্যবহার করা হয়নি। ইউরো কাপ শুরু হওয়ার আগে উদ্যোক্তারা জানিয়েছিলেন, এই প্রযুক্তি রেফারিদের সিদ্ধান্ত নিতে আরও সাহায্য করবে। ইউরো কাপে যে বল ব্যবহার করা হচ্ছে তাতে রয়েছে একটি বিশেষ ধরনের চিপ। সেই চিপের সাহায্যে সব তথ্য এসে পৌঁছয় ভার-এর দায়িত্বে থাকা দলের কাছে। তারা রেফারিকে তথ্য দিয়ে সিদ্ধান্ত নিতে সাহায্য করে।

আরও পড়ুন: টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সুপার এইটের ম্যাচেও বৃষ্টির ভ্রুকুটি, জেনে নিন পূর্ণাঙ্গ সূচি

অপ্রত্যাশিত হার

কিছুটা অপ্রত্যাশিতভাবেই তুলনামুলক দুর্বল দল স্লোভাকিয়ার বিরুদ্ধে ০-১ গোলে হারল বেলজিয়াম (Euro 2024)। এই ম্যাচের ৭ মিনিটে গোল পেয়েছিল স্লোভাকিয়া, ম্যাচে সংযুক্তি সময় ধরে ৯০ মিনিট সময় পেলেও তাতে আর গোলের দেখা পায়নি বেলজিয়াম। প্রথম ম্যাচেই হেরে যাওয়ায় স্বভাবতই হতাশ রোমেলু লুকাকু, কেভিন দি ব্রুইনরা। লুকাকুর জোড়া গোল বাতিল হয়ে যায়। ৫৭ মিনিটে লুকাকুর প্রথম গোল বাতিল হয়। প্রথমে গোল হয়েছে ভেবেছিলেন বেলজিয়াম ফুটবলাররা, কিন্তু ভার প্রযুক্তিতে দেখা যায়, লুকাকুর কাঁধ একটু বেড়িয়ে থাকার জন্য তিনি অফসাইড হয়ে যান এবং সেই গোল বাতিল হয়ে যায়। 

 

দেশের খবর, দশের খবর, সব খবর, সবার আগে পেতে ফলো করুন আমাদের  Whatsapp, FacebookTwitter, Telegram এবং Google News পেজ।

Tags:

Madhyom

bangla news

VAR

EURO 2024

UEFA EURO 2024

Belgium Football

Romelu Lukaku

Snickometer


আরও খবর


খবরের মুভি


ছবিতে খবর