img

Follow us on

Monday, Jun 17, 2024

World Earth Day 2024: আজ পালিত হচ্ছে বিশ্ব বসুন্ধরা দিবস, দিনটির তাৎপর্য জানেন?

জানেন কেন পালিত হয় বিশ্ব বসুন্ধরা দিবস?...

img

এভাবেই নিত্য দূষিত হচ্ছে পৃথিবী। দূষণের হাত থেকে এ গ্রহকে বাঁচাতেই বিশ্ব বসুন্ধরা দিবস পালন। ফাইল ছবি।

  2024-04-22 09:32:21

মাধ্যম নিউজ ডেস্ক: যথাযোগ্য মর্যাদায় পালিত হচ্ছে বিশ্ব বসুন্ধরা দিবস (World Earth Day 2024)। এই গ্রহ থেকে যাতে প্রাণের অস্তিত্ব হারিয়ে না যায়, তাই ফি বছর ২২ এপ্রিল দিনটি পালিত হয় বিশ্ব বসুন্ধরা দিবস হিসেবে। পরিবেশ সম্পর্কে সচেতন হওয়া, পরিবেশগত সমস্যা যেমন দূষণ, জলবায়ু পরিবর্তন এবং বাস-গ্রহের হাজারো সমস্যার দিকে মনোযোগ দেওয়ার সুযোগ দেয় বিশ্ব বসুন্ধরা দিবস।

বিশ্ব বসুন্ধরা দিবসের থিম (World Earth Day 2024)

এই গ্রহ যাতে চিরকালের জন্য বাসযোগ্য থাকে, তা নিয়ে ভাবনা-চিন্তারও সুযোগ দেয় দিনটি। প্রকৃতিকে কীভাবে বাঁচানো যায়, জীববৈচিত্রকে কীভাবে রক্ষা করা যায়, এই গ্রহের ভবিষ্যৎ কীভাবে উজ্জ্বলতর করা যায়, তা নিয়েও ভাবনা-চিন্তার সুযোগ দেয় বিশ্ব বসুন্ধরা দিবস। ফি বছরই বিশ্ব বসুন্ধরা দিবসের (World Earth Day 2024) একটি থিম থাকে। এবার ছিল, ‘প্ল্যানেট বনাম প্লাস্টিক’। এহেন থিম বেছে নেওয়ার কারণ হল পরিবেশ ও এই গ্রহের বাসিন্দাদের ওপর প্লাস্টিক দূষণের ক্ষতিকর প্রভাব সম্পর্কে জনসচেতনতা বৃদ্ধি করা। প্লাস্টিক নষ্ট হয় না। তাই তা পরিবেশের ভারসাম্য বজায় রাখার পক্ষে খুবই ক্ষতিকর একটি বস্তু।

প্লাস্টিকের উৎপাদন কমানোর পরামর্শ

এই প্লাস্টিকের ব্যবহার কীভাবে কমানো যায়, উৎপাদনই বা কীভাবে কমানো যায়, মানুষ যাতে এসব নিয়ে চিন্তা-ভাবনা করেন, সেই কারণেই এবার বেছে নেওয়া হয়েছে অভিনব এই থিম। ২০৪০ সালের মধ্যে প্লাস্টিক উৎপাদন ৬০ শতাংশ কমানোর পরামর্শ দিয়েছে অফিসিয়াল আর্থ ডে সংগঠক, আর্থডে ওআরজি। এ বিশ্বকে কীভাবে ভবিষ্যৎ প্রজন্মের বাসযোগ্য করে তোলা যায়, তা নিয়ে ভাবনা-চিন্তা করতে ১৯৭০ সালে ঠিক হয়, ফি বছর ২২ এপ্রিল দিনটি পালন করা হবে বিশ্ব বসুন্ধরা দিবস হিসেবে। বসুন্ধরাকে বাঁচাতে যাতে আস্ত একটি দিন উৎসর্গ করা হয়, এই ভাবনা প্রথম মাথায় আসে মার্কিন সেনেটর গেলর্ড নেলসন ও হার্ভার্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র ডেনিস হেইসের।

আরও পড়ুন: ‘বিজেপি একাই পেতে পারে ৩৫০টি আসন’, দাবি শীর্ষ অর্থনীতিবিদের

বায়ু দূষণ এবং জল দূষণের হাত থেকে পৃথিবীকে রক্ষা করতে আন্দোলনও করেছিলেন তাঁরা। তার পরেই ঠিক করেন ২২ এপ্রিল দিনটিকে গ্রহণ করা হবে বিশ্ব বসুন্ধরা দিবস হিসেবে। কারণ এই সময় স্কুল-কলেজে বার্ষিক পরীক্ষা থাকে না। থাকে স্প্রিং ব্রেক। সেই কারণেই বেছে নেওয়া হয় ২২ এপ্রিলকে। প্রকৃতির স্বাস্থ্য ভালো থাকলে যে আমরা ভালো থাকব, প্রকৃতি বাঁচলে যে আমরা বাঁচব, এই ভাবনা মানুষের মনে সঞ্চারিত করতেই আজও ঘটা করে পালিত হয় বিশ্ব বসুন্ধরা দিবস (World Earth Day 2024)।

 

দেশের খবর, দশের খবর, সব খবর, সবার আগে পেতে ফলো করুন আমাদের  Whatsapp, FacebookTwitter, Telegram এবং Google News পেজ।

 

Tags:

bangla news

Bengali news

madhyom news

news in Bengali   

World Earth Day 2024

Earth Day 2024


আরও খবর


খবরের মুভি


ছবিতে খবর