img

Follow us on

Friday, Jul 19, 2024

PM Modi: আজ রাশিয়া যাচ্ছেন মোদি, ‘‘ওরা হিংসায় জ্বলছে’’, পশ্চিমকে কটাক্ষ ক্রেমলিনের

Russia: পাঁচ বছর পর রাশিয়া যাচ্ছেন মোদি, ইউক্রেন যুদ্ধ থেকে দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য— পুতিনের সঙ্গে বৈঠকে আর কী কী অ্যাজেন্ডা?

img

রাশিয়া সফরে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। আলোচনা প্রেসিডেন্ট পুতিনের সঙ্গে।

  2024-07-08 09:41:48

মাধ্যম নিউজ ডেস্ক: পাঁচ বছর পর ফের রাশিয়া সফরে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি (PM Modi)। আজ, সোমবারই দুই দিনের সফরে মস্কো উড়ে যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী। ১০ জুলাই সেখান থেকে দেশে ফিরবেন তিনি। ২২তম ভারত-রাশিয়া বার্ষিক সম্মেলনে যোগ দিতেই প্রধানমন্ত্রীর এই সফর। রাশিয়ার (Russia) প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের (Vladimir Putin) সঙ্গে দ্বিপাক্ষিক বৈঠকও সারবেন মোদি। 

মোদি-পুতিন আলোচনা (PM Modi)

ভারতের সঙ্গে রাশিয়ার ব্যবসায়িক সম্পর্ক সুমধুর। তেল, কয়লা থেকে শুরু করে বিভিন্ন সামরিক সরঞ্জাম, রাশিয়া থেকে আমদানি করে ভারত। প্রধানমন্ত্রী মোদি (PM Modi) ও রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের মধ্যে মস্কোয় দু'দেশের বাণিজ্য সংক্রান্ত বিষয়ে আলোচনার সম্ভবনা রয়েছে৷ এমনটাই জানিয়েছেন, ভারতের বিদেশমন্ত্রী এস জয়শঙ্কর৷ তিনি বলেন, "বাণিজ্য ভারসাম্যহীনতার মতো কিছু সমস্যা আছে৷ সুতরাং, প্রধানমন্ত্রী মোদি এবং প্রেসিডেন্ট পুতিনের একে অপরের সঙ্গে সরাসরি কথা বলার জন্য এটি একটি ভালো সুযোগ।" বিশেষজ্ঞদের মতে, দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্য, ইউক্রেন যুদ্ধ থেকে প্রতিরক্ষা সমঝোতার বিষয়গুলি উঠে আসতে পারে মোদি-পুতিনের আলোচনায়।

মোদির সফর প্রসঙ্গে জয়শঙ্কর (PM Modi)

জয়শঙ্কর গত বছরের শেষের দিকে রাশিয়ায় তাঁর শেষ সফরের কথাও এক্ষেত্রে উল্লেখ করেছেন৷ তিনি বলেন, "গত বছরের শেষের দিকে আমি মস্কো গিয়েছিলাম৷ সেই সময়ে, আমি প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে একটি বার্তা নিয়ে গিয়েছিলাম যে আমরা বার্ষিক শীর্ষ সম্মেলনের জন্য প্রতিশ্রুতিবদ্ধ৷" তিনি আরও যোগ করেছেন, বার্ষিক শীর্ষ সম্মেলন একটি নিয়মিত ঘটনা ৷ ভারত-রাশিয়া সম্পর্কের ক্ষেত্রে এটি সহায়ক হবে বলেও জানান ভারতের বিদেশমন্ত্রী৷

আরও পড়ুন: হিন্দু বিরোধিতা কংগ্রেসের ট্র্যাডিশন! জেনে নিন বহমান সেই ধারা

ইউক্রেন যুদ্ধের প্রভাব

২০২২ সাল থেকে শুরু হওয়া ইউক্রেন যুদ্ধের পর থেকে মোদিকে (PM Modi) রাশিয়া যেতে দেখা যায়নি। সে দিক থেকে এই সফর খুবই উল্লেখযোগ্য বলে মনে করছে কূটনৈতিক মহল। আমেরিকার চোখরাঙানি থাকার পরেও রাশিয়ার সঙ্গে কখনওই বন্ধুত্ব নষ্ট করতে চায়নি ভারত। ইউক্রেন যুদ্ধের বিরোধিতা করলেও রাশিয়ার (Russia) বিরুদ্ধে সে ভাবে সরব হয়নি ভারত। এমনকি, রাষ্ট্রপুঞ্জেও রাশিয়ার বিরুদ্ধে কথা বলেনি দিল্লি। তৃতীয়বার প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর এটাই প্রথম রাশিয়া সফর মোদির৷ শেষবার ২০১৯ সালে রাশিয়া গিয়েছিলেন মোদি। ভারতের প্রধানমন্ত্রীর রুশ সফর নিয়ে ক্রেমলিনের মুখপাত্র দিমিত্র পেসকোভ বলেন, ‘‘নরেন্দ্র মোদির এই সফর দু’দেশের দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের অগ্রগতির জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। মস্কোয় মোদির অনুষ্ঠান সাড়া ফেলবে।’’

মোদির সফর নিয়ে কী বলছে ক্রেমলিন

এই আবহে মোদি-পুতিনের এই বৈঠককে অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করছে ক্রেমলিন। রুশ সংবাদমাধ্যমকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে পুতিন প্রশাসনের এক মুখপাত্র দাবি করেন, পশ্চিমী দেশগুলি ভারতীয় প্রধানমন্ত্রীর রুশ সফর নিয়ে ‘ঈর্ষান্বিত’। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির এই মস্কো সফরকে তারা ‘ঈর্ষার চোখে দেখছে’। দিমিত্রি পেসকভ বলেন, “আমরা একটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ এবং পূর্ণাঙ্গ সফরের প্রত্যাশা করছি। রুশ-ভারত সম্পর্কের জন্য এটা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ হতে চলেছে। ওরা (পশ্চিমী দেশগুলি) হিংসায় জ্বলছে। ওরা খুব কড়াভাবে নজর রাখছে। এর অর্থ, এই সফরকে অত্যন্ত গুরুত্ব দিচ্ছে ওরা। ভুল কিছু করছে না। এটা অত্যন্ত গুরুত্ব দেওয়ার মতোই হতে চলেছে।”

 

দেশের খবর, দশের খবর, সব খবর, সবার আগে পেতে ফলো করুন আমাদের  Whatsapp, FacebookTwitter, Telegram এবং Google News পেজ।

 

Tags:

vladimir putin

Madhyom

Narendra Modi

Russia

bangla news

India-Russia

 S Jaishankar


আরও খবর


খবরের মুভি


ছবিতে খবর